কানাইঘাটে বিনামূল্যেও কেউ নেয়নি পশুর চামড়া

কানাইঘাট প্রতিনিধি


অগাস্ট ০১, ২০২০
০৯:২৪ অপরাহ্ন


আপডেট : অগাস্ট ০১, ২০২০
০৯:২৪ অপরাহ্ন



কানাইঘাটে বিনামূল্যেও কেউ নেয়নি পশুর চামড়া

কানাইঘাটে কোরবানি দেওয়ার পর পশুর চামড়া বিক্রির জন্য সারাদিন অপেক্ষা করেছেন, কিন্তু কোনো ক্রেতা মেলেনি। এমনকি বিনামূল্যেও নেয়নি কেউ। শেষমেশ কোরবানির পশুর চামড়া মাটিতে পুঁতে ফেলেছেন কোরবানিদাতারা। উপজেলার বিভিন্ন জায়গায় এমন ঘটনা ঘটেছে। 

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কানাইঘাট উপজেলায় প্রতি বছর ঈদ-উল-আজহার দিন কোরবানির পশু জবাইয়ের সঙ্গে সঙ্গে বাড়ি বাড়ি গিয়ে চামড়া ব্যবসায়ী ও  বিভিন্ন ধর্মীয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ চামড়া সংগ্রহ করতেন। কিন্তু এ বছর ঘটেছে ব্যতিক্রম ঘটনা।  

যারা কোরবানি দিয়েছেন তারা আক্ষেপ করে বলেন, ‘চামড়া হচ্ছে রপ্তানিযোগ্য একটি শিল্প পণ্য। গত কয়েক বছর থেকে চামড়ার দাম কমে গেলেও অনেক ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান এলাকাভিত্তিক কোরবানির চামড়া বিনা টাকায় সংগ্রহ করতো। কিন্তু এবারের ঈদ-উল-আযহার দিনে কোনো ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে কেউ বিনা পয়সায়ও চামড়া সংগ্রহ করা হয়নি। বাধ্য হয়ে  হাজার হাজার কোরবানির পশুর চামড়া শেষ পর্যন্ত মাটিতে পুঁতে ফেলতে হয়েছে। গত বছর চামড়া ব্যবসায়ীরা পানির দামে চামড়া ক্রয় করলেও এ বছর উপজেলার কোথাও কোন চামড়া ব্যবসায়ীর দেখা মেলেনি। ফলে রপ্তানিযোগ্য লক্ষ লক্ষ টাকার চামড়া মাটিতে পুঁতে ফেলতে হয়েছে। 

ইউডি/এনপি-১৬