সিলেটে ৭৭৬২ বিদেশগামীর নমুনা পরীক্ষা, শনাক্তের হার ৩.৬৯

নিজস্ব প্রতিবেদক


সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২০
১২:৪০ পূর্বাহ্ন


আপডেট : সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২০
১২:৪০ পূর্বাহ্ন



সিলেটে ৭৭৬২ বিদেশগামীর নমুনা পরীক্ষা, শনাক্তের হার ৩.৬৯

বিদেশগামীদের জন্য করোনা নেগেটিভ সনদ বাধ্যতামূলক করার পর সিলেট বিভাগের বিদেশগামীদের জন্য করোনা পরীক্ষার জন্য আলাদা বুথ স্থাপন করে সিলেট সিভিল সার্জন কার্যালয়। গত ২৩ জুলাই শুরু হয় এই কার্যক্রম। এই দুই মাসে ৭ হাজার ৭৬২ জন বিদেশগামী করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দিয়েছেন। 

সিলেট সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, সরকার বিদেশগামীদের জন্য করোনা নেগেটিভ সনদ বাধ্যতামূলক করার পর সিলেট বিভাগের বিদেশযাত্রীদের জন্য বুথ স্থাপন করে সিলেট সিভিল সার্জন কার্যালয়। বিদেশগামীদের করোনা পরীক্ষার জন্য নিবন্ধন, নমুনা জমা দেওয়ার শিডিউল প্রকাশ করা হয়। প্রথম দিকে বিদেশগামীদের স্বশরীরের উপস্থিত হয়ে ফি দিয়ে সিভিল সার্জন কার্যালয়ে নিবন্ধন করতে হতো। নিবন্ধনের পরদিন উপশহরস্থ আবুল মাল আবদুল মুহিত ক্রীড়া কমপ্লেক্সে গিয়ে নমুনা দিতে হতো। পরের দিন নিজে গিয়ে সিভিল সার্জনের কার্যালয় থেকে রিপোর্ট সংগ্রহ করতে হতো। এরপর শর্ত কিছুটা শিথিল করা হয়। তখন থেকে শুধুমাত্র নমুনা প্রদানের সময় বিদেশগামীদের উপস্থিতি বাধ্যতামূলক করা হয়। 

সিভিল সার্জনের কার্যালয় সূত্র জানায়, গত দুইমাসে সিলেট বিভাগের ৭ হাজার ৭৬২ জন বিদেশগামী যাত্রী করোনার নমুনা পরীক্ষা করিয়েছেন। এর মধ্যে ২৮৭ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। শনাক্তের হার ৩.৬৯। 

এ বিষয়ে সিলেটের সিভিল সার্জন ডা. প্রেমানন্দ মন্ডল সিলেট মিররকে বলেন, ‘গত দুই মাসে আমাদের এখানে সাড়ে সাত হাজারের বেশি বিদেশগামী করোনা পরীক্ষার জন্য নিবন্ধন করেছেন। তাদের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ওসমানী মেডিকেল কলেজের ল্যাবে। এদের মধ্যে ২৮৭ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।

এদিকে, সিডিউল মেনে করোনা পরীক্ষা করেও ঢাকা আন্তজার্তিক বিমান বন্দরে গিয়ে ফ্লাইটে উঠতে পারেননি বলে অভিযোগ জানিয়েছেন এক বিদেশযাত্রী। দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসী এই শিক্ষার্থী সিলেট মিররকে বলেন, ‘সিলেট সিভিল সার্জন কার্যালয়ের সিডিউল অনুযায়ী পরীক্ষা করিয়েও আমি বিমানে উঠতে পারিনি। কারণ এখান থেকে আমাকে বিমানে উঠার ৭২ ঘণ্টা আগের রিপোর্ট দেওয়া হয়েছে। কিন্তু মালেশিয়ান এয়ারলাইন্স আমাকে জানায় উড়োজাহাজে উঠার ৪৮ ঘণ্টা আগের রিপোর্ট ছাড়া বিমানে উঠতে দেওয়া হবে না।’

এ বিষয়ে সিভিল সার্জন বলেন, ‘পৃথিবীর বেশিরভাগ দেশে ৭২ ঘণ্টা আগের রিপোর্ট নিয়ে যাওয়া যায়। কিন্তু কিছু দেশে যেতে বিমানে ওঠার ৪৮ ঘণ্টা আগের রিপোর্টের প্রয়োজন হয়। ৪৮ ঘণ্টা আগের রিপোর্ট প্রয়োজন হলে আমাদেরকে আগে জানাতে হবে। আগে জানিয়ে নিবন্ধন করলে আমরা বিমানে উঠার ৪৮ ঘণ্টা আগের রিপোর্ট দেওয়ার ব্যবস্থা করব।’

বিএ-০৩