শায়েস্তাগঞ্জে চামড়ার বাজারে ধস

শায়েস্তাগঞ্জ সংবাদদাতা


অগাস্ট ০১, ২০২০
০৯:৩৯ অপরাহ্ন


আপডেট : অগাস্ট ০১, ২০২০
০৯:৩৯ অপরাহ্ন



শায়েস্তাগঞ্জে চামড়ার বাজারে ধস

বিগত দুই বছর ধরে চামড়ার দাম কমছে। তবে এবার চামড়ার বাজার এতটাই খারাপ হয়েছে যে বাধ্য হয়ে চামড়া মাটিতে পুঁথে ফেলছেন অনেকে। 

আজ শনিবার (১ আগস্ট) সরজমিনে ঘুরে দেখা যায়, কোরবানির গরুর চামড়া কেনার জন্য ব্যাপারীদের তেমন আগ্রহ নেই। কেউ কেউ চামড়া কিনছেন খুব কম দামে। একটি গরুর চামড়া মাত্র ৫০-৮০ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে।  আবার বেলা গড়িয়ে এলে ফ্রিতেও চামড়া নিচ্ছেন না ব্যবসায়ীরা। এতে করে বঞ্চিত হচ্ছে গরিব ও এতিমরা। কারণ কোরাবানির গরুর চামড়া পুরোটাই গরিবদের মাঝে বিতরণ করা হয়। 

এ বিষয়টি নিয়ে কথা হয় শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার চানপুর গ্রামের ব্যাপারী নূর মিয়ার সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘করোনাভাইরাসের কারণে গাড়িভাড়া বেশি। আবার চামড়া দেশের বাইরে রপ্তানি করা যাচ্ছে না। তাই চামড়ার দাম কম।’

চামড়ার দাম কম হওয়ার পেছনে কোনো সিন্ডিকেট আছে কি না জানতে চাইলে তিনি বিষয়টি নাকচ করেন। নূর মিয়া বলেন, ‘অনেক রিস্ক নিয়ে ৮০ টাকা করে প্রতিটি কিনছি। জানি না কেনা দামে বিক্রি করা যাবে কি না‘। 

চামড়া বিক্রেতা মো, মহিউদ্দিন সোহাগ জানান, তার চামড়া কেনার জন্য কেউ আসেনি, চামড়া কি করবেন এ নিয়ে বিপাকে আছেন তিনি। সুরাবই গ্রামের শাহ আলম জানান, বাধ্য হয়ে তিনি চামড়া মাটির নিচে পুঁতে ফেলছেন। নাম না প্রকাশ না করার শর্তে একজন বলেন, ‘চামড়া যদি একেবারেই রপ্তানি করা না করা যেত তাহলে চামড়া ব্যবসায়ীরা এত চামড়া কিনত না। এর পেছনে নিশ্চয়ই কোনো সক্রিয় সিন্ডিকেট জড়িত রয়েছে। কম দামে কিনে ব্যবসায়ীরা ঢাকায় চড়া দামেই বিক্রি করবে।’

এসএইচ/এনপি- ১৭