ক্রীড়াঙ্গনে এক ব্যক্তির একাধিক পদ আর থাকছে না!

সিলেট মিরর ডেস্ক


অক্টোবর ১৭, ২০২০
০৮:২৫ পূর্বাহ্ন


আপডেট : অক্টোবর ১৭, ২০২০
০৮:২৬ পূর্বাহ্ন



ক্রীড়াঙ্গনে এক ব্যক্তির একাধিক পদ আর থাকছে না!

একই ব্যক্তি একাধিক ক্রীড়া ফেডারেশন বা সঙস্থার গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে থাকতে পারবেন না। ক্রীড়া সংগঠকদের এমন বহু কমিটিতে থাকা নিরুৎসাহিত করতে দ্রুতই প্রজ্ঞাপণ জারি করতে যাচ্ছে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ (এনএসসি)। 

সংস্থাটির চেয়ারম্যান ও যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল দেশের তৃণমূল ও জাতীয় ক্রীড়া সংগঠকদের উৎসাহিত করতেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। জাতীয় ক্রীড়া ফেডারেশনগুলোতে সাধারণ সম্পাদক পদে থাকা একই ব্যক্তি একই পদে দুই জায়গায় দেখা যায় না। তবে কিছু কিছু সংগঠক নানা পদে রয়েছেন দু’চারটি ক্রীড়া ফেডারেশনে। যেমন ক্রীড়া সংগঠক তোফাজ্জল হোসেন একই সঙ্গে রয়েছেন অ্যাথলেটিক্স, উশু এবং সাইক্লিংয়ের সহ-সভাপতি পদে। দুইয়ের অধিক ক্রীড়া ফেডারেশন বা এসোসিয়েশনে রয়েছেন ওয়ালটনের কর্মকর্তা এফএম ইকবাল বিন আনোয়ার ডন, বাশাপ-এর সভাপতি শেখ মো. মারুফ হাসান, বাংলাদেশ আরচারি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক কাজী রাজীব উদ্দিন আহমেদ চপল। এদর বাইরেও অনেক ক্রীড়া সংগঠকই দুইয়ের অধিক জাতীয় ফেডারেশন কিংবা এসোসিয়েশনে পদস্থ।

জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, ‘জেলা ও বিভাগে একই ব্যক্তি গুরুত্বপূর্ণ দু’টি পদে থাকতে পারবেন না। এছাড়া জাতীয় ক্রীড়া ফেডারেশন ও এসোসিয়েশনে একই ব্যক্তি গুরুত্বপূর্ণ দু’টি পদে (সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক) এবং গুরুত্বহীন একের অধিক পদে থাকতে পারবেন না। এ বিষয়ে আমরা তাদেরকে নিরুৎসাহিত করছি।’

এদিকে দু’টি জেলার সাধারণ সম্পাদক একই সঙ্গে রয়েছেন বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার ওই পদেও। ‘একই ব্যক্তি বিভাগীয় ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালনে নিরুৎসাহিতকরণ’ বিষয়ে খুব শিগগিরই সচিব মাসুদ করিমের সই করা প্রজ্ঞাপণ (নং-জাক্রীপ/১১৯/জেন/৬৪৬/১) জারি করতে যাচ্ছে ক্রীড়া পরিষদ। পরিচয় প্রকাশে অনিচ্ছুক ক্রীড়া পরিষদের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘গতিশীল ও কার্যকর ক্রীড়া কর্মকাণ্ডের স্বার্থে একই ব্যক্তি একই সঙ্গে বিভাগীয় ও জেলা সংস্থার সাধারণ সম্পাদক হিসেবে মনোনীত/নির্বাচিত হওয়া নিরুৎসাহিত করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে। তাছাড়া জাতীয় ক্রীড়া ফেডারেশনেও একজন ক্রীড়া সংগঠক দু’টির অধিক কমিটিতে থাকতে পারবেন না।’

এএন/০৪