প্রবাসীদের জীবিকার সংকট

হোসেন আহমদ খান


সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০
০৭:১৫ অপরাহ্ন


আপডেট : সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০
০৭:১৫ অপরাহ্ন



প্রবাসীদের জীবিকার সংকট

প্রবাসীরা জীবিকা সংকটে আছেন। বিদেশফেরত অভিবাসীদের ওপর পরিচালিত এক গবেষণায় এমন তথ্য পেয়েছে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম)। ‘র‌্যাপিড অ্যাসেসমেন্ট অব নিডস অ্যান্ড ভালনারেবিলিটিস অব ইন্টারনাল অ্যান্ড ইন্টারন্যাশনাল রিটার্ন মাইগ্র্যান্টস ইন বাংলাদেশ’ শীর্ষক এ গবেষণা প্রতিবেদনের কথা সম্প্রতি দেশের প্রায় সকল পত্রিকায় সংবাদটি এসেছে।

প্রতিবেদন অনুযায়ী, ফেরত আসা অভিবাসীরা জীবিকা, আর্থিক সংকট (উপার্জনের অভাব এবং বর্ধিত ঋণ), স্বাস্থ্যসংক্রান্ত বিষয়সহ পুনরেকত্রীকরণে নানা ধরনের সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন। একেকজন অভিবাসী কর্মী গড়ে তাঁর পরিবারের তিনজন সদস্যকে সহায়তা প্রদান করে থাকেন। সে ক্ষেত্রে অপরিকল্পিত ও বৃহৎসংখ্যক জীবিকাহীন অভিবাসী কর্মী ফেরত আসায় সারা দেশে রেমিট্যান্সনির্ভর জনগোষ্ঠীর ওপরও বিরূপ প্রভাব পড়ছে। আমাদের পর্যবেক্ষণ বলে সরকারি-বেসরকারি সাহায্য ও কূটনৈতিক উদ্যোগ ছাড়া এ সংকট থেকে উত্তরণ সম্ভব হবে না। 

কোভিড-১৯এর কারণে উপার্জনব্যবস্থা, সামাজিক সেবা, স্বাস্থ্যসেবা এবং সামাজিক সহায়তার নেটওয়ার্কের অভাবে হাজারো অভিবাসী কর্মী প্রবাসে যে দেশে কাজ করছিলেন, সেখান থেকে বাংলাদেশে তাঁদের জেলায় ফিরে আসতে বাধ্য হন। 

কোভিড-১৯ মহামারির সময় সবচেয়ে বিপদাপন্ন গোষ্ঠীদের মধ্যে রয়েছেন অভিবাসী কর্মীরা। তাঁদের পুনরায় মূল ধারায় ফিরিয়ে আনতে সরকারকে বেসরকারি সংস্থাগুলোর সঙ্গে একসঙ্গে কাজ করতে হবে। 

করোনা মহামারির আগে যে দেশে কাজ করতেন, সেই দেশেই পুনরায় অভিবাসনে ইচ্ছুক। তাই প্রবাসীদের পুনরায় বিদেশে পাঠাতে সরকারের সংশিষ্ট মন্ত্রণালয়গুলোকে সমন্বিতভাবে কাজ করার অনুরোধ করছি। 

 

লেখক : কাতার প্রবাসী

 

এএফ/০১